প্রচ্ছদ

মোদির ডেরায় সাড়া ফেলল প্রিয়াংকার রোড শো

প্রকাশিত হয়েছে : ২:১২:২৫,অপরাহ্ন ১৬ মে ২০১৯ | সংবাদটি ৩০ বার পঠিত

সিলেটেরকন্ঠডটকম

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ডেরায় নির্বাচনী শোভাযাত্রা করে সাড়া ফেলেছেন কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াংকা গান্ধী। লাল শাড়ি পরা সুদর্শনী প্রিয়াংকা ট্রাকে করে গোটা এলাকা ঘুরে বেড়ান। এ সময় চারদিকে জনতার ভিড় লেগে যায়। সবাইকে হাত তুলে অভিনন্দনের জবাব দেন প্রিয়াংকা। এ সময় কংগ্রেস সমর্থকদের মধ্যে ব্যাপক উন্মাদনা কাজ করে।

রোড শো চলাকালে অনেক কংগ্রেস ভক্ত প্রিয় নেত্রীকে ফুলের মালা পরিয়ে দেন। রাজনীতিতে আনকোরা প্রিয়াংকা সহাস্যে সেই মালা গলায় নিয়ে পরিপক্বতার পরিচয় দেন।

গোটা রোড শোতে প্রিয়াংকা ছিলেন হাস্যোজ্জ্বল। মানুষের জটলা দেখলে মাঝে মধ্যেই নেমে পড়েন ট্রাক থেকে। পায়ে হেঁটে মিশে যান জনতার মাঝে। সবার সঙ্গে হাত মেলান। এ সময় সমর্থকদের উচ্ছ্বাস, মুহুর্মুহু জয়ধ্বনি লক্ষ্য করা যায়।

শোভাযাত্রা চলাকালে কংগ্রেসের এক সমর্থক জ্ঞান হারিয়ে পড়ে গেলেন রাস্তায়। গাড়ি থেকে নেমে তাকে দেখতে ছুটে চলেন ইন্দিরা গান্ধীর উত্তরসূরি প্রিয়াংকা। শেষ পর্বের ভোটের চার দিন আগে এভাবেই উত্তরপ্রদেশে কংগ্রেসকে চাঙ্গা করার চেষ্টা চালিয়ে যান প্রিয়াংকা চোপড়া।

ভারতের রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা বলছেন, পূর্ব উত্তরপ্রদেশের দায়িত্ব পাওয়া কংগ্রেস সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াংকার বুধবারের এই রোড শোতে দল কতটা চাঙ্গা হলো, তা সময়ই বলবে। তবে প্রধানমন্ত্রীর কেন্দ্রে রাজীবকন্যার রোড শো ঘিরে কংগ্রেসের অনেক কর্মী এতটাই উত্তেজিত ছিলেন যে, বিজেপির কয়েকজনের সঙ্গে হাতাহাতিতেও জড়িয়ে পড়েন তারা।

বুধবারের রোড শো শুরু হয়েছিল বারানসির লঙ্কাগেট থেকে। বহু আগ থেকেই সেখানে ভিড় করছিলেন কংগ্রেসকর্মীরা। ‘চৌকিদার চোর হ্যায়’ স্লোগান দেন তারা। এ সময় বিজেপির এক কর্মী প্রিয়াংকা ও রবার্ট ভদ্রকে বিষোদগার করতে থাকেন। এতে উত্তেজিত হয়ে পড়েন কংগ্রেসকর্মীদের একাংশ। তারা বিজেপির ওই কর্মীকে মারতে শুরু করেন। হইচই শুরু হয়ে যায়। শেষ পর্যন্ত বিজেপিরকর্মীকে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

কিছু দিন আগে বারানসির যে পথ দিয়ে প্রচার করেছিলেন মোদি, বুধবার প্রিয়াংকার রোড শোর জন্য সেই পথকেই বেছে নেয়া হয়েছিল। প্রায় দুই ঘণ্টার রোড শো শেষ হয় কাশী বিশ্বনাথ মন্দিরের সামনে। প্রচার পর্বের শেষে সেই মন্দির দর্শনে যান প্রিয়াংকা। বৃহস্পতিবার এই বারানসিতেই যৌথ প্রচারে আসার কথা রয়েছে অখিলেশ-মায়াবতীর।

প্রসঙ্গত ভারতের লোকসভা নির্বাচন সামনে রেখে কংগ্রেসের তৃণমূলের দাবির মুখে রাজনীতির পথে নামেন রাজীব-সোনিয়া তনয়া প্রিয়াংকা গান্ধী, যার মধ্যে ইন্দিরা গান্ধীর ছায়া দেখছে কংগ্রেস। প্রিয়াংকাকে দায়িত্ব দেয়া হয় উত্তর-পূর্ব কংগ্রেস। শুরু থেকে প্রিয়াংকার প্রতিটি প্রচার ও শোভাযাত্রা ব্যাপক উদ্দীপনা সৃষ্টি করছে কংগ্রেস নেতাকর্মীদের মধ্যে।

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com