প্রচ্ছদ

ইন্টারনেটের গতি কমানোর সিদ্ধান্ত পরিবর্তন

প্রকাশিত হয়েছে : ১২:৩৮:০৭,অপরাহ্ন ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ | সংবাদটি ১১ বার পঠিত

সিলেটেরকন্ঠডটকম

চলমান মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধ করতে দেশে ইন্টারনেট গতি ধীর করে দেওয়ার নির্দেশের একদিনের মাথায় সিদ্ধান্ত পরিবর্তনের তথ্য জানাল বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। ইন্টারনেট গতি নির্বিঘ্ন রাখারই সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

সোমবার (১২ ফেব্রুয়ারি) সকালে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি) থেকে ইন্টারনেট সেবা স্বাভাবিক রাখতে সংশ্লিষ্ট সবাইকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। বিটিআরসি’র এক কর্মকর্তা জানান, ইন্টারনেট বন্ধের আগের সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করা হয়েছে।

পরীক্ষা শুরুর দুই ঘণ্টা আগে আজ সোমবার সকাল ৮টা থেকেই সারা দেশে ইন্টারনেটের ধীরগতি পরিলক্ষিত হয়। ঘোষণা অনুযায়ী, এটি থাকার কথা ছিল সকাল সাড়ে ১০টা পর্যন্ত। কিন্তু ৯টার দিকে ইন্টারনেটের প্রায় স্বাভাবিক গতি ফিরে আসে।

ইন্টারনেট গতি স্বাভাবিক রাখার জন্য বিটিআরসির নির্দেশ পাওয়ার পর পরই এ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে বলে গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (এএসপিএবি) প্রেসিডেন্ট এম এ হাকিম।

পরীক্ষায় প্রশ্ন ফাঁস রোধ করতে গতকাল রোববার সারা দেশের মোবাইল অপারেটর কোম্পানিগুলোকে ইন্টারনেট ধীর করে দেওয়ার নির্দেশনা দিয়েছিল বিটিআরসি। কথা ছিল, ১২ থেকে ২৪ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত সকাল ৮টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত ধীরগতিতে চলবে ইন্টারনেট সেবা। পরীক্ষামূলকভাবে গতকাল রোববার রাত ১০টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত ইন্টারনেট ধীরগতির রাখা হয়।

সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, আজ সকালে ইন্টারনেট সেবা ধীর করে দেওয়া হয়। পরে নতুন নির্দেশনা অনুযায়ী আবারও ইন্টারনেট সেবা স্বাভাবিক হয়ে আসে বলে জানান এম এ হাকিম।

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com