প্রচ্ছদ

সাংবাদিক শিহাবের বাসায় চুরি: উদ্ধার হয়নি মালামাল, পুুলিশের তৎপরতা নেই

প্রকাশিত হয়েছে : ১২:০২:০৫,অপরাহ্ন ১৩ অক্টোবর ২০১৫ | সংবাদটি ৩৫ বার পঠিত

সিলেটেরকন্ঠডটকম

4চুরি সংঘটিত হওয়ার ১৫ দিন পেরিয়ে গেলেও বৈশাখী টেলিভিশনের সিলেট ব্যুরো প্রধান ও ইলেকট্রনিক্স মিডিয়া জার্নালিষ্ট এসোসিয়েশনের (ইমজা) সাধারণ সম্পাদক শাহাব উদ্দিন শিহাবের বাসায় দুধর্ষ চুরির ঘটনায় কুলকিনারা করতে পারেনি পুলিশ।

ঘটনার পর থেকে পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা চুরি হওয়া মালামাল ও পাসপোর্ট উদ্ধারে আশ্বাস দিলেও কাজের কাজ হচ্ছে না। মালামাল উদ্ধারে পুলিশের তৎপরতাও দেখা যাচ্ছেনা। এ ঘটনায় পুলিশ আব্দুল্লাহ ও দেলওয়ার নামের দুই যুবককে গ্রেফতার করলেও মুলহোতারা রয়েছে ধরাছোঁয়ার বাইরে।

গত ৭ অক্টোবর সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার এসএম রুকন উদ্দিন কোতোয়ালী থানার সহকারী কমিশনার, ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও তদন্তকারী কর্মকর্তাকে ৩৬ ঘন্টার মধ্যে চুরি হওয়া মালামাল উদ্ধারের নির্দেশ দেন। কিন্তু নির্দেশের এক সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও উদ্ধার হয়নি কোন কিছুই।  ফলে এ নিয়ে সাংবাদিকদের মধ্যে সৃষ্টি হয়েছে ক্ষোভ।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা কোতয়ালী থানার এসআই কামাল জানিয়েছেন, ঘটনার পর থেকেই চোরচক্রকে ধরতে পুলিশ অভিযান চালাচ্ছে। এ পর্যন্ত দুই জনকে গ্রেপ্তার  করা  হয়েছে। তাদের কাছ থেকে এখন পর্যন্ত কোন ক্লু উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।  পুলিশ চুরি যাওয়া মালামাল উদ্ধার করতে কাজ করে যাচ্ছে বলে জানান তিনি।

প্রসঙ্গত, গত ২৭ সেপ্টেম্বর রাতে শাহাব উদ্দিন শিহাবের ঝরনারপাড় ৮৯/সি বাসায় দুধর্ষ চুরির ঘটনা ঘটে। চোরদল তার বাসার কলাপসেপল গেটের পাশের গ্রিল কেটে দরজার তালা ভেঙে ঘরে প্রবেশ করে একটি ল্যাপটপ, মাটির ব্যাংকে গচ্ছিত টাকা, দামি কাপড়-চোপড়, ফ্রিজ থেকে কোরবানির গরুর মাংস এবং ব্যক্তিগত পার্সপোট (নং-এএফ-৯০৫৯৪০৬) নিয়ে যায়। পাসপোর্টে বিভিন্ন দেশের ভিসা লাগানো ছিল। এ ঘটনায় ২৮ সেপ্টেম্বর সাংবাদিক শিহাব বাদি হয়ে কোতোয়ালী মডেল থানায় একটি মামলা (নং- ৩৫) দায়ের করেন।

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com