প্রচ্ছদ

জাতিসংঘের আহ্বান প্রত্যাখ্যান মিয়ানমার জেনারেলের

প্রকাশিত হয়েছে : ১১:৪২:০৬,অপরাহ্ন ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ | সংবাদটি ২০ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক
Myanmar military commander-in-chief Senior General Min Aung Hlaing speaks during the second day of 'Sin Phyu Shin' joint military exercises in the Ayeyarwaddy delta region on February 3, 2018. The two-day military exercise is the biggest since 1997, involving different armed forces division. / AFP PHOTO / POOL / LYNN BO BO

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গা নির্যাতন ও গণহত্যার দায়ে শীর্ষ জেনারেলদের বিচারে জাতিসংঘের আহ্বানকে সার্বভৌমত্বে হস্তক্ষেপ মনে করছেন দেশটির বর্তমান সেনাপ্রধান মিন অং হ্লাইয়াং।

মিয়ানমারের সার্বভৌমত্বে জাতিসংঘের হস্তক্ষেপ করার অধিকার নেই মন্তব্য করে তিনি বলেছেন, কোনো দেশ, সংগঠন বা গ্রুপের ‘অন্য একটি দেশের সার্বভৌমত্বে হস্তক্ষেপের অধিকার নেই। কেউ অভ্যন্তরীণ বিষয়ে মধ্যস্থতা করতে এলে তাতে ভুল বোঝাবুঝির সৃষ্টি হয়।

রাখাইনে রোহিঙ্গা মুসলিমদের ওপর সংঘটিত নির্যাতনের তদন্তের আহ্বান জানিয়েছিল জাতিসংঘ। জাতিসংঘের আহ্বানের পর আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত (আইসিসি) রাখাইনে সংঘটিত অপরাধের প্রাথমিক তদন্ত শুরু করেছে।

জাতিসংঘের ওই আহ্বানের সপ্তাহখানেক পর প্রথমবারের মতো প্রতিক্রিয়া দেখালেন দেশটির প্রভাবশালী সেনাপ্রধান। তার বক্তব্য সেনাবাহিনী পরিচালিত দৈনিক পত্রিকা ‘মায়াওয়াদি’তে প্রকাশ করা হয়েছে।

‘মায়াওয়াদি’তে প্রকাশিত খবরের বরাত দিয়ে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে সোমবার এ খবর প্রকাশ হয়েছে।

উল্লেখ্য, মিয়ানমারের আরাকান রাজ্যে জাতিগত নিধনের শিকার হয়েছে কয়েক লাখ রেহিঙ্গা। দেশটির সেনাবাহিনী কর্তৃক গত বছরের আগস্ট মাসে শুরু হওয়া অভিযানে ২৪ হাজার রোহিঙ্গা মুসলমানকে হত্যা করা হয়। ১ লাখ ১৪ হাজার মুসলমানকে নির্যাতন করা হয় এবং ১৫ হাজার বাড়িঘর পুড়িয়ে দেয়া হয়। নির্যাতিত হয়ে বর্তমানে প্রায় ৬ লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে।

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com