প্রচ্ছদ

আসিফকে চরম ভাবে অপমান করলেন প্রীতম, পরে তুলোধনু করছে ভক্তরা

প্রকাশিত হয়েছে : ২:১৭:০৫,অপরাহ্ন ১২ জুন ২০১৮ | সংবাদটি 0 বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক

বিনোদন ডেস্ক: আসিফ আকবর কারাগার থেকে মুক্তি পেয়েছেন। কিন্তু এর পরে আর এক শিল্পী প্রীতম আহমদ তাকে চরমভাবে অপমান করেন। এর পরে প্রীতমকে তুলোধনু করছেন ভক্তরা।

কারাগার থেকে মুক্তি পেয়ে নিজ বাসায় এসে সংগীতশিল্পী আসিফ আকবর ফেসবুকে লিখেছেন, ‘বাংলাদেশের সবাইকে সালাম এবং শারদীয় শুভেচ্ছা। আমার অবর্তমানে যারা দোয়া করেছেন, তাদের সবার প্রতি আমার মরহুম বাবা মা’র পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা।’

‘যারা আমাকে নিয়ে সত্য মিথ্যা প্রশ্ন তুলেছেন, তাদের জন্য সঠিক উত্তর নিয়ে হাজির হবো শিগগরিই। আইন শৃঙ্খলা বাহিনী, কারা কর্তৃপক্ষ, কারাবন্দী ভাইদের জন্য অনেক ভালোবাসা, কারণ বাংলাদেশের একজন শিল্পী হিসেবে তারা আমার ব্যাপক যত্ন নিয়েছেন।’

‘আমার ফ্যানদের অনুরোধ করছি সবাই শান্ত থাকুন, যে কোনো রকম উত্তেজনা পরিহার করুন, আমি ভালো আছি। সবার কাছে দোয়া চাই। আমি আপনাদের ভালোবাসার কৃতজ্ঞতাপাশে আবদ্ধ, ভালোবাসা অবিরাম।’

আসিফের এই স্ট্যাটাসের পর তাকে অপমান করে নিজের ফেসবুকে একটি পোস্ট দিয়ে তোপের মুখে পড়েছে কন্ঠশিল্পী প্রীতম আহমেদ। তিনি ফেসবুক পোস্টে লিখেছেন, ‘এক গ্রামে এক চোরকে চুরির শাস্তি হিসেবে জুতোর মালা গলায় দিয়ে সারা পাড়া হাঁটিয়ে মাফ চাওয়ানো হলো। তারপর সেই চোর বাসায় ফেরার পথে তার বৌ প্রশ্ন করলো তোমার কি খুব কষ্ট হচ্ছে? চোর তখন উত্তর দিলো- না বৌ কষ্ট হচ্ছে না, শুধুতো জুতোর মালা গলায় দিয়ে ঘুরিয়েছে। গায়েতো আর হাত তুলেনি।’

প্রীতমের এই স্ট্যাটাস পাওয়ার পর পর কমেন্ট বক্সে মুহুর্তে প্রচুর নেতিবাচক মন্তব্য আসতে থাকে। আতিকুল ইসলাম লিখেছেন, ‘প্রীতম আহমেদ  ভাই আপনাকে অনেক ভদ্র ভাবছিলাম আপনি তো দেখছি ছি ছি! মুখ দিয়ে এসব কথা ওয়াক। একজন প্রসিদ্ধ সুরকারের মুখে এসব মানায় না।’

আদনান চৌধুরী লিখেছেন, ‘আপনার স্ট্যাটাস দেখে মনে হচ্ছে ক্লাশ ১০ম/ একাদশ এ পড়েন, আপনি যে একটা শিল্পী বা একটা সম্মানিত মানুষ তার কোনো ছিটে ফোটাও নাই। প্লিজ শুনেন খোঁচাখুঁচি না করে যে পেশায় আছেন সেটা নিয়ে সময় নষ্ট করুন, আপনার মতন গল্প যদি আমরা স্টার্ট করি তাহলে পড়তে পড়তে কয়েক বছর চলে যাবে।’

‘আর যদি মনে করেন আপনি ওপর মহলের ক্ষমতার দাপটে আছেন, তাহলে বলতেই হয় এমন দাপট এখন কেউ দেখায় না কারণ ২০১৮ সাল এটা, ডিজিটাল যুগে আমরা ১৬ কোটি মানুষ খুব শান্তিতে আছি। মাননীয় প্রাধানমন্ত্রী কে ফলো করুন, দেশে এখন কোন হানাহানি মারামারি হয় না, কোনো ফালতুমি কেউ করে না, কেউ কারো জন্য সময় নষ্ট করে না, যে যার যার কাজ নিয়ে বিজি, কারণ আমরা এখন উন্নতদেশ। শুধু ভাই আপনাকেই দেখি দরিদ্র বাংলাদেশ এর মতন আচরণ। শর্ট (short) ভাবে বলি আমরা বাংলাদেশিরা সবাই স্মার্ট সবাই এখন কাজের ভিতর থাকি এখানে খোঁচাখোঁচি, বা নৈরাজ্যের সুযোগ, সময় কারোরি নাই।’

মোজ্জামেল রুমেল মজুমদার লিখেছেন, ‘ভাই প্রীতম তোমাকে বলছি, তুমি কি তোমার দেয়া স্ট্যাটাসের কমেন্টসগুলো পড়তেছো? তোমারই পোস্টে ৯৫% কমেন্টসই দেখছি তোমার বিপক্ষে! প্লিজ নিজকে আর নীচে নামিও না! আসিফের জায়গায় পৌঁছাতে তোমাকে আরো চল্লিশ পঞ্চাশ বছর সাধনা করতে হবে! আমি কিন্তু তোমার গান ও শুনি, যেটুকু অর্জন করেছো দয়া করে সেটুকু খোয়াও না! তুমি গানের জগতের মানুষ, সেটা নিয়ে’ই থাকো! অভিনেতা হতে যেওনা! তুমি অভিনয়ে অনেক বেশি কাঁচা!’