প্রচ্ছদ

তরুণীকে অপহরণের পর ধর্ষণ, সাবেক স্বামী গ্রেফতার

প্রকাশিত হয়েছে : ৮:৫৪:৩৯,অপরাহ্ন ০৩ এপ্রিল ২০১৮ | সংবাদটি ৫ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক

কেরানীগঞ্জে বাসা থেকে তুলে নিয়ে এক তরুণীকে (২৪) ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার সকালে চুনকুটিয়া এলাকার একটি ফ্লাট থেকে ওই তরুণীকে উদ্ধার ও গ্রেফতার করা হয়েছে তরুণীর সাবেক স্বামী আবুল বাশারকে।

এর আগে রোববার রাত ১১টার দিকে আগানগর ইস্পাহানি আবাসিক এলাকার পাঁচতলা থেকে ওই তরুণীকে অস্ত্রের মুখে গাড়িতে তুলে নিয়ে যায় আবুল বাশার ও তার কয়েক সহযোগী।

জানা যায়, ভুক্তভোগী ওই তরুণী কেরানীগঞ্জের কালিগঞ্জে একটি তৈরি প্রতিষ্ঠানে পোশাকশ্রমিক হিসেবে কাজ করে। গ্রামের বাড়ি মুন্সিগঞ্জের লৌহজং থানার কাজীর পাগলা এলাকায়। অভাবের তাড়নায় কয়েক বছর আগে কেরানীগঞ্জে এসে কাজ নেয় মেয়েটি।

এরই মধ্যে পরিচয় হয় আবুল বাশারের সঙ্গে। একপর্যায়ে তারা বিয়ে করে। বিয়ের ৬ মাস পর আবুল বাশারের কর্মকাণ্ডে অতিষ্ঠ হয়ে বছরখানেক আগে তাকে তালাক দেয় ওই তরুণী। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে কয়েক দফা ওই তরুণীর ওপর হামলা চালায় আবুল বাশার।

এনিয়ে আদালতে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে বাশারের বিরুদ্ধে মামলা করে তরুণী।

এরপর বাশার গাঢাকা দেয়। সর্বশেষ রোববার রাতে কয়েকজন সহযোগী নিয়ে বাসা থেকে ওই তরুণীকে অপহরণ করে বাশার।

এ ঘটনায় সোমবার মুন্সিগঞ্জ থেকে এসে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানায় অভিযোগ দায়ের করেন তরুণীর মা আছিয়া বেগম।

দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার এসআই আবু সিদ্দিক জানান, মেয়েটিকে অপহরণের পর চুনকুটিয়া এলাকার একটি ফ্লাট নিয়ে আটকে রাখা হয়। একপর্যায়ে মেয়েটিকে ধর্ষণ করে আবুল বাশার।

তিনি জানান, পরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে ওই ফ্ল্যাট থেকে মেয়েটিকে উদ্ধার ও বাশারকে গ্রেফতার করা হয়। তিনি আরও জানান, ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য তরুণীকে হাসপাতালে পাঠানো হবে। পাশাপাশি বাশারের সহযোগীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com