প্রচ্ছদ

ধর্মান্তরিত ব্যক্তিকে অনুসরণ: ২ ‘জঙ্গি’ আটক

প্রকাশিত হয়েছে : ৮:৩৮:০১,অপরাহ্ন ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ | সংবাদটি ৩ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক

রাজধানীর তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল এলাকা থেকে ২ জঙ্গিকে আটক করেছে র‍্যাব-২। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা জেএমবি সদস্য এবং ঢাকায় নাশকতার পরিকল্পনার পাশাপাশি ধর্মান্তরিত এক ব্যক্তিকে অনুসরণ করছিল বলে জানা যায়।

সোমবার (১২ ফেব্রুয়ারি) নুরুজ্জামান লাবু ও নাজমুল ইসলাম শাওন নামের এই দুই জঙ্গিকে আটকের পর তাদের কাছ থেকে দুটি চাপাতি, উগ্রবাদী বই, ৭২৪ ইউএস ডলার উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানায় র‍্যাব-২।

মঙ্গলবার ( ১৩ ফেব্রুয়ারি) কারওয়ান বাজারে র‌্যাবের মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাব-২ এর অধিনায়ক লেফট্যানেন্ট কর্নেল আনোয়ারুজ্জামান জানান, গ্রেফতারকৃত নুরুজ্জামান আগে বাস-ট্রাকের হেলপার হিসেবে ও লন্ড্রিতে কাজ করেছেন। বর্তমানে তিনি কখনও দিনমজুর আবার কখনও রিকশাচালক। মাদ্রাসায় ভর্তি হলেও তিনি পড়ালেখা শেষ করেনি। একসময় জামায়াতে ইসলামের সঙ্গেও সম্পৃক্ত ছিলেন। ২০১৫ সালে তিনি সাইফ ওরফে রুবেল ওরফে রবিন এবং সাগর ওরফে মারুফ ওরফে সোহাগ ওরফে শিহাবের মাধ্যমে উগ্রপন্থায় উদ্বুদ্ধ হয়। তারা নুরুজ্জামানকে ভিন্নধর্মীদের ওপর আক্রমণ ও হত্যার ব্যাপারে অনুপ্রাণিত করত।

তিনি আরও জানান, ঝিনাইদহের একটি স্কুলমাঠ ও গ্যারেজে সমমনাদের নিয়ে তারা গোপন বৈঠকও করেছেন। কিছুদিন আগে জেএমবির পক্ষ থেকে নুরুজ্জামানকে একটি অটোরিকশা কিনে দেওয়া হয়। এই রিকশা চালানোর অজুহাতে তিনি বিভিন্ন এলাকা রেকি করতেন। ধর্মান্তরিত খ্রিস্টানদের অনুসরণ করতেন। সম্প্রতি তিনি ধর্মান্তরিত এক খ্রিস্টান ব্যক্তিকে অনুসরণ করছিলেন। তিনি বোমা তৈরিতেও পারদর্শী বলে জানা গেছে।

র‍্যাব-২ এর অধিনায়ক আরও জানান, পেশায় নৌ-প্রকৌশলী শাওন ‘ব্ল্যাক ফ্ল্যাগ ফ্রম সিরিয়া’ নামে একটি উগ্রবাদী বইসহ এ ধরনের আরও কিছু বইপত্র পড়ে জঙ্গি কর্মকাণ্ডে জড়ানোর সিদ্ধান্ত নেন। পরে তিনি ফেসবুকের মাধ্যমে উগ্রপন্থী বক্তব্য ছড়িয়ে দিতেন। ২০১৫ সালের মার্চে ফেসবুকে আবু আব্দুল্লাহ নামে এক জঙ্গির সঙ্গে তার পরিচয় হয়। তার মাধ্যমে জেএমবিতে যোগ দেয় শাওন। পরে তার সঙ্গে পরিচয় হয় জেএমবির আরেক সদস্য সুলায়মান ওরফে আজাহারের। সুলায়মানের নির্দেশে তিনি বিভিন্ন পেশাজীবীদের মধ্যে উগ্র মতাদর্শ প্রচারের মাধ্যমে সদস্য সংগ্রহের চেষ্টা করে আসছিল।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে পাওয়া তথ্যের বরাতে র‌্যাব কর্মকর্তারা জানান, দেশের বিভিন্ন স্থানের প্রায় অর্ধশত সমমনা উগ্রপন্থীর সঙ্গে তারা অনলাইনের মাধ্যমে যোগাযোগ স্থাপন করেছেন। তারা সংগঠিত হয়ে ঢাকায় নাশকতার পরিকল্পনা করছিল। এজন্য তাদের ছয়-সাতজন ঢাকায় আসে। তবে র‌্যাবের অভিযানের সময় বাকিরা পালিয়ে গেছে। তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com